হ্যাক হবে না ফেসবুক অ্যাকাউন্ট! মেনে চলুন এই সহজ টিপস

0
8

বাংলারজয়  ডেস্ক :

বর্তমানে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোর মধ্যে জনপ্রিয়তার শীর্ষে রয়েছে ফেসবুক। বিশ্বের কোটি কোটি মানুষ ফেসবুক ব্যবহার করছে। দিন দিন নতুন নতুন ফিচার যোগ করা হচ্ছে এই প্ল্যাটফর্মে।গত বছরের মাঝামাঝি সময়ে ফেসবুকের সিইও মার্ক জাকারবার্গ ঘোষণা করেন, খুব শীঘ্রই মেটাভার্স প্রযুক্তি চালু হবে এ প্ল্যাটফর্মে। এর জন্য যাবতীয় প্রস্তুতি নেওয়া শুরু হয়েছে। ইতোমধ্যে মেটার পক্ষ থেকে একটি সুপারকম্পিউটারও তৈরি করা হচ্ছে

যেভাবে নিজের ফেসবুক প্রোফাইল সুরক্ষিত রাখবেন

বর্তমানে স্মার্টফোন ব্যবহারকারীদের মধ্যে প্রায় সবাই ফেসবুকে অ্যাকাউন্ট রয়েছে। টিয়ার ১ সিটির ব্যবহারকারী যেমন রয়েছে তেমন টিয়ার ২ ও ৩ সিটির ব্যবহারকারীরাও রয়েছে। এর ফলে সব ব্যবহারকারীদের সুবিধার জন্য একাধিক ফিচার্স চালু করা হয়েছে। এর পাশাপাশি নিরাপত্তার জন্যও একাধিক ফিচার্স চালু রয়েছে। যার মাধ্যমে নিজের ফেসবুক প্রোফাইল সুরক্ষিত রাখা সম্ভব।

যেভাবে প্রোফাইল হ্যাকিং হয়

ফেসবুক প্রোফাইল হ্যাকিংয়ের জন্য বেশ কয়েকটি পথ নেয় হ্যাকাররা। বিভিন্ন স্পাই ওয়ারের সাহায্য যেমন হ্যাকিং করে তেমনই আরও কয়েকটি উপায় হ্যাকারদের জানা। কিন্ত ফেসবুকের মাধ্যমে অনেক ব্যক্তিগত বিষয়ও থাকে। তাই ফেসবুক প্রোফাইল যাতে সুরক্ষিত থাকে সেই বিষয়টি নজরে রাখা উচিত।

প্রোফাইল সুরক্ষিত রাখার জন্য করণীয়

ফেসবুক প্রোফাইল সুরক্ষিত রাখার জন্য কয়েকটি সাধারণ নিয়ম মেনে চলতে হবে। সেগুলি খুবই সহজ। এগুলো মেনে চললে হ্যাকাররা সহজে আপনার প্রোফাইলে কোনোভাবেই ঢুকতে পারবে না। কী কী পদ্ধতি অবলম্বন করা দরকার? জেনে নিন এই প্রতিবেদনে।

কোনো লিংক ক্লিক করবেন না

বর্তমানে সামাজিক মাধ্যমে বিভিন্ন লিংক শেয়ার করার সুবিধা রয়েছে। এর ফলে প্রতারকরা বিভিন্ন সময় বিভিন্ন লিংক শেয়ার করে। আর এতেই বড় বিপদের মধ্যে পড়তে হয়। কারণ, এসব লিংকের মধ্যেই ম্যালওয়ার থাকে। লিংকে ক্লিক করার ফলে ওই ম্যালওয়ার অ্যাকটিভ হয়ে ফোনের মধ্যে ঢুকে যায়। ফোনের যাবতীয় তথ্য এমনকি বিভিন্ন আইডি-পাসওয়ার্ড সহ বিভিন্ন তথ্য প্রতারকদের পাঠাতে শুরু করে। এর ফলে ফেসবুকের তথ্য প্রতারকদের কাছে গেলে তারা অনায়াসে প্রোফাইলে ঢুকে যেতে পারে।

​অচেনা ব্যক্তিদের ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট অ্যাকসেপ্ট করবেন না

ফেসবুকে অনেক সময় অচেনা বিভিন্ন ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট আসে। তাদের মধ্যে অনেকেই প্রতারক হতে পারে বা বড়সড় হ্যাকার হতে পারে। তাই অচেনা ব্যক্তিদের থেকে ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট অ্যাকসেপ্ট করবেন না। কারণ হয় তো তারা কোনো সময় আপনার ব্যক্তিগত চ্যাটবক্সে কোনও লিংক শেয়ার করতে পারে। অথবা কোনো কারণে নিজের প্রফাইলে এমন কোনো লিংক শেয়ার করল যার মধ্যে কোনো ম্যালওয়ার লুকিয়ে রাখা রয়েছে। তাই অচেনা ব্যক্তিদের থেকে ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট অ্যাকসেপ্ট করা একদম উচিত নয়।

টু ফ্যাক্টর অথন্টিকেশন চালু রাখুন

প্রোফাইলের নিরাপত্তা জোরদার করতে টু ফ্যাক্টর অথন্টিকেশন চালু রাখা দরকার। ফলে অন্য কেউ আপনার প্রোফাইলে ঢোকার চেষ্টা করলেই তার মেসেজ আসবে আপনার ফোনে।

​নিয়মিত পাসওয়ার্ড পরিবর্তন করুন

নির্দিষ্ট সময় অন্তর ফেসবুক পাসওয়ার্ড পরিবর্তন করা দরকার। কারণ এর মাধ্যমে আপনার ফেসবুকের নিরাপত্তায় কোনো ফাঁকফোকর ধরা পড়ে না। ফেসবুকের পাসওয়ার্ড সেট করার জন্য অবশ্যই লম্বা পাসওয়ার্ড, স্পেশাল ক্যারেক্টার, থাকা জরুরি। প্রয়োজনে নর্ডপাস বা অন্য কোনো অ্যাপের সাহায্য নিতে পারেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here